ভারত থেকে আবারও এলেন স্বামীর খোঁজে, এবার স্বামীকে পেয়ে খুশি রিয়া বালা এবং ধন্যবাদ জানালেন বাংলাদেশ সরকারকে।

স্বামীর খোঁজে প্রথম দফায় এসে নিরাশ হয়ে ফেরা ভারতীয় তরুণী রিয়া বালা (৩২) আবারও পঞ্চগড়ে এসেছেন। প্রথমবার শ্বশুরবাড়ির লোকজন তাঁকে ঘরে না তুললেও এবার তাঁরা নববধূকে বরণ করে নিয়েছেন।

গতকাল বুধবার বিকেলে পঞ্চগড়ের বাংলাবান্ধা স্থলবন্দরের ইমিগ্রেশনের মাধ্যমে রিয়া বাংলাদেশে আসেন। এ সময় তাঁর পরনে ছিল লাল বেনারসি শাড়ি। পরে সন্ধ্যায় তেঁতুলিয়া উপজেলা প্রশাসনের হস্তক্ষেপে লিখিত অঙ্গীকার করে তাঁকে গ্রহণ করেন শ্বশুরবাড়ির লোকজন। রাতেই তেঁতুলিয়া উপজেলার দেবনগর ইউনিয়নের শিবচণ্ডী গ্রামে শ্বশুরবাড়িতে আনা হয় ওই তরুণীকে।

রিয়ার স্বামী বিটু রায় (২৪) ওই গ্রামের কৃষক অখিল চন্দ্র রায়ের ছেলে। বিটু উচ্চমাধ্যমিক পর্যন্ত পড়াশোনা করেছেন। রিয়া বালা ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের বর্ধমান জেলার অম্বিকা কালনা এলাকার বাসিন্দা। তাঁর বাবা শ্যামল কান্তি বালা ভারতীয় রেলওয়েতে চাকরি করেন। রিয়া স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করেছেন।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে রিয়া বালা ও বিটু রায় পঞ্চগড় আদালতে আইনজীবীর মাধ্যমে আবারও বিয়ের অ্যাফিডেভিট করেছেন এবং ধন্যবাদ জানালেন বাংলাদেশ সরকারকে। ভারতীয় বধূ ঘরে তোলা হয়েছে খবর পেয়ে রিয়াকে দেখতে আজ দিনভর বিটু রায়ের বাড়িতে ভিড় করেন স্থানীয় লোকজন।